মোহিনী

 মোহিনী

        উত্তম বালা

উত্তম বালা
উত্তম বালা


মরন ঘনাল সই, এল বুঝি ঐ...

জিবন কিছুনা শুধু, ঘরপোড়া খই

সাজিলাম নাস্তিক, যৌবনের জোরে 

প্রভু আজ দিনশেষে, নমিলাম তোরে


শ্মশান আছে যত, মালিক ঐ ভোলা 

পিশাচ সঙ্গী তোর, ত্রিনয়ন খোলা 

মন্দির ছাড়ি তাই, নমিনু শ্মশানে 

চুমিনু পায়ে তোর, গড়া সে পাশানে।


একমাত্র চিরন্তন, মৃত‍্যু কোলে লয়ে 

মোহিনী রূপে তোর, কোলে গেনু ক্ষয়ে

দশাঙ্গুলে চাপি বক্ষে, আলিঙ্গন করি

সৃষ্টির শ্রেষ্ঠ তুই, হে মৃত্যু সুন্দরী...


মৃত্যু মোহিনী তুই, খুজে সুধা পায়

আমি সহ মহাবিশ্ব, তোর পানে ধায়...

তীব্রতর পৌষ রাতে, প্রিয়ার উষ্ণ বুকে 

তারচেয়ে সুধা তুই, জড়াইনু সুখে 


সুধাময় তুই, তাই জীব কুল ধায়

পেয়ে তোরে নরনারী, চির সুখ পায়

সুদাসল সবই তুই, প্রেম ভালোবাসা 

লভি তোরে কে ফিরেছে? ছেড়ে তোর আশা...